বুধবার, ০৩ মার্চ ২০২১, ০৩:০৯ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম
বর্তমান সরকার জাতি,ধর্ম,বর্ণ নির্বিশেষে উন্নয়নের ধারা অব্যহত রেখেছে- রূপসায় এ্যাড. সুজিত ডিজিটাল ভূমি ব্যবস্থাপনায় বিশেষ অবদানের জন্য পুরস্কিত হলেন পাইকগাছার ইউএনও পাইকগাছায় কৃষি ও কৃষকের উন্নয়নে দু’ দিনব্যাপী প্রশিক্ষন অনুষ্ঠিত পাইকগাছায় জাতীয় ভোটার দিবস পালিত রূপসায় জাতীয় ভোটার দিবস পালিত রূপসায় সোনালী ব্যাংক কাজদিয়া শাখার গ্রাহক সেবা মাসের উদ্ধোধন রূপসায় জাতীয় বীমা দিবস পালিত  নাইতং পাহাড়ে হোটেল ও বিনোদন কেন্দ্র নির্মাণের প্রতিবাদে শাহবাগে সমাবেশ ডুমুরিয়ার শোভনায় উন্নয়নের অগ্রযাত্রা শীর্ষক  মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত পাইকগাছা থানা পুলিশের অভিযানে গাঁজা সহ মাদক বিক্রেতা আটক

শতভাগ পাওনা পরিশোধের মাধ্যমে পিপিপি-এর ভিত্তিতে চালু হবে খুলনার সাত পাটকল

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট টাইম সোমবার, ২৯ জুন, ২০২০
  • ১৭৮ জন সংবাদটি পড়েছেন

রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকলগুলোর বিরজমান পরিস্থিতির স্থায়ী সমাধান এবং পাটখাতকে পুনরুজ্জীবিত করার লক্ষ্যে কর্মরত শ্রমিকদের গোল্ডেল হ্যান্ডশেকের মাধ্যমে শতভাগ পাওনা পরিশোধ করে সরকারি-বেসরকারি অংশীদারীত্বের (পিপিপি) ভিত্তিতে মিলগুলো চালুর সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে সরকার।

সোমবার (২৯ জুন) এ উপলক্ষে খুলনা জেলা প্রশাসন সার্কিট হাউজে এক প্রেস কনফারেন্সের আয়োজন করে। খুলনার জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র তালকদার আব্দুল খালেক বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শ্রমিকদের ব্যাপারে অত্যন্ত আন্তরিক। শ্রমিকদের কথা চিন্তা করেই সরকার এ পর্যন্ত পাটকলগুলোতে ১০ হাজার কোটি টাকা ভর্তুকি দিয়েছে। তিনি আরও বলেন, সরকারি-বেসরকারি অংশীদারীত্বের (পিপিপি) ভিত্তিতে মিলগুলোর আধুনিকায়ন করেই চালু করা হবে। সরকারের এ সিদ্ধান্তের ফলে মিলগুলো বন্ধ হবে না, আবার শ্রমিকও বেকার হবে না। কারণ পরবর্তীতে এসব মিলের শ্রমিকদেরই কর্মসংস্থান অব্যাহত থাকবে।

প্রেস কনফারেন্সে জেলা প্রশাসক জানান, শ্রম আইন অনুযায়ী দুই মাস আগে অর্থাৎ আগামীকাল (৩০ জুন) সরকারের পক্ষ থেকে নোটিশ দিয়ে বিস্তারিত জানানো হবে। ইতোমধ্যে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের সভায় এ ব্যাপারে নীতিগত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। শ্রমিকদের সকল বকেয়া পাওনা ২০২০-২০২১ অর্থ বছরে ৪০ শতাংশ এবং বাকি ৬০ শতাংশ পাওনা টাকা পরবর্তী দু’টি অর্থ বছরে ৩০ শতাংশ করে পরিশোধ করা হবে। এছাড়া ২০১৪ সাল থেকে অবসরে যাওয়া শ্রমিকদের পাওনা এককালীন পরিশোধ করা হবে। তিনি আরও জানান, সরকারের এ সিদ্ধান্তের ফলে প্রতিটি শ্রমিক প্রায় সাড়ে ১২ লাখ থেকে ৫৪ লাখ পর্যন্ত টাকা পাবেন। মিলগুলো পরবর্তীতে সরকারি-বেসরকারি অংশীদারীত্বের (পিপিপি) ভিত্তিতে চালু হলে এসব মিলে কর্মরত দক্ষ শ্রমিকরাই নিয়োগের ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার পাবেন।

প্রেস কনফান্সে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার সরদার রকিবুল ইসালম, পুলিশ সুপার এসএম শফিউল্লাহ, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ ইউসুপ আলী, খুলনা প্রেসক্লাবের সভাপতি এসএম নজরুল ইসলাম, খুলনা সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি মোঃ মুন্সি মাহবুব আলম সোহাগ।

সংবাদটি শেয়ার করুন : ধন্যবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ধরনের আরো সংবাদ

আমাদের রূপসী ইউটিউব চ্যানেল

সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: রবিউল ইসলাম তোতা

প্রধান কার্য্যালয় : রামনগর পূর্ব রূপসা, রূপসা, খুলনা

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া কপি রাইট বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Hwowlljksf788wf-Iu