শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০৫:৫৫ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম
দিঘ‌লিয়া উপ‌জেলা আইন শৃঙ্খলা ক‌মি‌টির সভা অনু‌ষ্ঠিত মহাসমাবেশ সফল করার লক্ষে পাইকগাছা বিএনপি’র প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত করোনা কালীন চিংড়ি চাষের সমস্যা ও পন্থা নির্ধারণ শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত  রূপসায় লিগ্যাল এইড কার্যক্রমের প্রাতিষ্ঠানিক গণশুনানী অনুষ্ঠিত রূপসায় কোভিড-১৯ মহামারী কালীন সময়ে সমস্যা বিষয়ক সেমিনার অনুষ্ঠিত ডুমুরিয়ার  খর্ণিয়া  ও মাগুরাঘোনা ইউনিয়ন বিএনপি’র প্রস্তুতি মূলক সভা অনুষ্ঠিত খুলনার তেরখাদায় জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধে যুবক খুন সল্প বা‌হির‌দিয়া ইউ‌নিয়ন এসডিজি ফোরামের ইন্টারেক্টিভ সভা অনুষ্ঠিত ডুমুরিয়ায় নারী নির্যাতন এবং বাল্যবিয়ে প্রতিরোধ প্লাটফর্মের এ্যাডভোকেসি সভা অনুষ্ঠিত খুলনার রূপসায় অস্ত্র-গুলিসহ যুবক গ্রেফতার

অবশেষে এসপি মাসুদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নিতে সুপারিশ

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট টাইম বৃহস্পতিবার, ১৭ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ৭৯ জন সংবাদটি পড়েছেন

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ অবশেষে কক্সবাজারের সাবেক পুলিশ সুপার মাসুদ হোসেনের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নিতে চার্জশীট সুপারিশ করেছেন তদন্তকারী কর্মকর্তা র‌্যাব-১৫ এর সহকারী পুলিশ সুপার মো. খাইরুল ইসলাম।

রোববার দুপুরে চার্জশীটের বিভিন্ন বিষয় জানাতে ঢাকায় র‌্যাবের মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলন করে র‌্যাব। মেজর সিনহাকে খুনের পরিকল্পনার বিষয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক ল্যাফটেন্যান্ট কর্নেল আসিফ বিল্লাহ কক্সবাজারের তৎকালীন পুলিশ সুপার মাসুদ হোসেনের ভূমিকা সম্পর্কে বলেন ঘটনার পরেও ঘটনাস্থল পরিদর্শন ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন না করে তিনি অপেশাদারিত্বের পরিচয় দিয়েছেন। তিনি এ বিষয়ে অত্যান্ত উদাসীন ছিলেন। দায়িত্ব পালনে তার আরও উদাসীন হওয়া উচিৎ ছিল। এসব কারনে এসপি মাসুদ হোসেনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে চার্জশীটে সুপারিশ করা হয়েছে।

র‌্যাবের এই মুখপাত্র আরো জানান- কক্সবাজারের টেকনাফ থানার বরখাস্তকৃত ওসি প্রদীপ কুমার দাসের পরিকল্পনা ও প্রত্যক্ষ মদদে মেজর সিনহা খুন হয়। টেকনাফে বৈধ অস্ত্র ব্যবহার করে অবৈধ কার্যক্রমের অভয়ারন্য গড়ে তুলেছিলেন ওসি প্রদীপ। এসব ঘটনা জেনে ফেলার কারনেই টেকনাফ থানায় পরিকল্পনা করে তাকে খুন করা হয়। আসিফ বিল্লাহ বলেন ইয়াবা বানিজ্যের বিষয়টি জানতে পেরে সিনহা গত জুলাই মাসের মাঝামাঝি সময়ে ওসি প্রদীপের সংগে কথা বলতে থানায় যান। তখন  ওসি প্রদীপ মেজর সিনহাকে সরাসরি হত্যার হুমকি দেয়। প্রদীপ ভেবেছিল হুমকি দিলে মেজর সিনহা কক্সবাজার ত্যাগ করবে। মেজর সিনহা কক্সবাজার ত্যাগ না করায় তাকে হত্যা করা হয়।

খুনের পরিকল্পনা বিষয়ে সাংবাদিকদের অপর এক প্রশ্নের জবাবে আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক আশিক ল্লিাহ জানান- মেজর সিনহা ছিলেন বন্ধু প্রিয় মানুষ। তিনি টেকনাফে গিয়েছিলেন তার ইউটিউব চ্যানেল চালুর জন্য। সেখানে দ্রুততার সংগে এলাকাবাসীর সংগে তার বন্ধুত্ব গড়ে ওঠে। তাদের কাছ থেকে জানতে পারেন টেকনাফের মানুষের ওপর ওসি প্রদীপের নির্যাতন-নিপীড়নের লোমহর্ষক কাহিনী। ইয়াবা কেনা-বেচার সম্পৃক্ততার প্রমানও পান তিনি। সবমিলিয়ে তার কাছে এমন কিছু তথ্য ছিল যা প্রকাশ পেলে ওসি প্রদীপ কুমার সংকটে পড়ার আশংকা ছিল। এসব বিষয় নিয়ে কথা বলতে মেজর সিনহা টেকনাফ থানায় যান ওসি প্রদীপের সংগে কথা বলতে। এসময় ওসি প্রদীপ মেজর সিনহাকে এসব কর্মকান্ড থেকে বিরত থাকতে বলেন। মেজর সিনহা টেকনাফ নাছেড়ে সিনহা তার কাজ চালিয়ে যাওয়ায় ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন ওসি প্রদীপ। তিনি থানাতে বসেই উপ-পরিদর্শক লিয়াকত ও তিন তথ্যদাতাদের সাথে বৈঠক করেন। বৈঠকে মেজর সিনহাকে হত্যার পরিকল্পনা চুড়ান্ত করতে ওসি প্রদীপ নির্দেশ দেন। অভিযুক্তদের কয়েকজন হত্যা ঘটনা ভিন্নখাতে প্রবাহিত করতে অপচেষ্টা চালায়। মেজর সিনহাকে গুলি করার পর তার মৃত্যু নিশ্চিত করতে তাকে হাসপাতালে নিতেও কালক্ষেপন করা হয়।

রবিবার সকাল সোয়া ১০ টায় কক্সবাজার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যজিষ্ট্রেট তামান্না ফারহার আদালতে চার্জশীট জমা দেয়া হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন : ধন্যবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ধরনের আরো সংবাদ

আমাদের রূপসী ইউটিউব চ্যানেল

সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: রবিউল ইসলাম তোতা

প্রধান কার্য্যালয় : রামনগর পূর্ব রূপসা, রূপসা, খুলনা

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া কপি রাইট বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Hwowlljksf788wf-Iu