বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ০১:৪৭ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম
ব‌টিয়াঘাটায় করোনা স‌চেতনতায় এস‌ডি‌জি ফোরা‌মের প্রচারাভিযান কুষ্টিয়ায় সংবাদ প্রকাশের জের ধরে পত্রিকা সম্পাদককে হুমকি ! বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির নব নির্বাচিত সভাপতি আব্দুল মতিন খসরু আর নেই ! খুলনার তেরখাদায় ডিবি পুলিশের অভিযানে ২৫০ গ্রাম গাঁজাসহ আটক-১ হেফাজতের নায়েবে আমিরের পদ থেকে সরে দাড়ালেন মোহাম্মদ হাসান মেডিকেলে ভর্তির সুযােগ পাওয়া রাশেদুলের পড়ালেখার সহযােগিতায় মানবিক সাহায্যের হাত বাড়ালেন কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা মোঃ নুর আলম মিয়া। রূপসায় নারী উন্নয়ন ফোরামের অর্থায়নে দুঃস্থ মহিলাদের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ। খুলনার তেরখাদায় ট্রলি-ইজিবাইক সংঘর্ষে নিহত- ১ কুষ্টিয়ায় আবারো দূর্নীতির মহোৎসবে মেতেছে ইউপি চেয়ারম্যান ওমর ফকিরহাট থেকে অপহৃত ইজিবাইক চালকের মৃতদেহ পিরোজপুর থেকে উদ্ধার !

খুলনায় বোরো ধান রোপণের ধুম কৃষকের চোখে সোনালী স্বপ্ন

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট টাইম বুধবার, ২৭ জানুয়ারী, ২০২১
  • ৪৯ জন সংবাদটি পড়েছেন

নিজস্ব প্রতিবেদকঃখুলনার ৯টি উপজেলায় বোরো ধান রোপনের ধুম পড়েছে। আর সময় না থাকায় শীত ও কুয়াশা উপেক্ষা করে কৃষকরা মাঠে মজুর নিয়ে কাজ করছে। আগাম জমি প্রস্তুত করে কে কার আগে ধানের চারা রোপণ করবেন। এনিয়ে রীতিমত নিম্নাঞ্চলের কৃষকরা সোনালী স্বপ্ন দেখছেন।

খুলনা জেলা কৃষি কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, জেলার মধ্যে সবচেয়ে বেশি বোরো আবাদ হয় ডুমুরিয়া উপজেলায়। জেলায় এ বছর ৫৭ হাজার ৫২০ হেক্টর জমিতে বেরো আবাদ করা হয়েছে। তার মধ্যে ডুমুরিয়া উপজেলায় ২১ হাজার ৩শ‘ হেক্টর জমিতে বোরো আবাদ হয়েছে। আর লবণাক্ত অঞ্চল দাকোপ উপজেলায় লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয় ৮৫ হেক্টর জমিতে। এদিকে প্রত্যন্ত উপজেলা কয়রায় লক্ষ্যমাত্রা ধরেছিল ৪ হাজার হেক্টর, সেখানে লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়ে ৫ হাজার হেক্টর জমিতে বোরো আবাদ হবে।

দাকোপ উপজেলার কাকড়াবুনিয়া গ্রামের কৃষক আব্দুল হাই জানান, ‘গত আমন মৌসুমে ধানের ফলন এবং বাজারমূল্য ভালো পাওয়ায় চলতি বোরো মৌসুমে ৫ বিঘা জমিতে বোরো আবাদ করেছি।

রূপসা উপজেলার কৃষক আবদুল আলিম বলেন, গেল বছর ১২ বিঘা জমিতে বোরো ধান চাষ করেছিলাম। মাঠে ধানও মোটামুটি ভালো হয়েছিল। কিন্তু সেবার করোনার কারণে শ্রমিক পাওয়া যাচ্ছিল না। ধান কাটতে গিয়ে ব্যাপক সমস্যার সম্মুখিন হতে হয়েছিল। গেলবার ধান চাষের খরচা তুলতে দিশেহারা হয়ে পড়েছিলাম। সব ক্ষতি পোষাতে এ বছর আবারও বীজতলা তৈরি করে বোরো আবাদ করেছি।

কয়রা উপজেলার কৃষক ইনছার আলী বলেন, জমি প্রস্তুত। কয়েকদিন পর বীজতলা থেকে চারা উত্তোলন করবো জমিতে রোপনের জন্য। বোরো ফসলটি ভালো হলে পরিবার পরিজন নিয়ে শান্তিতে থাকতে পারব। কয়রা উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা এস এম মিজান মাহমুদ বলেন, চলতি মৌসুমে উপজেলার ৭টি ইউনিয়নে প্রায় ৫ হাজার ৫শ হেক্টর জমিতে বোরো ধান চাষ হবে। এর মধ্যে হাইব্রিড ৪ হাজার হেক্টর, উফসী ২হাজার ৫০০ হেক্টর জমিতে বোরো উৎপাদন করার লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। ইতোমধ্যে বোরো চারা রোপন শুরু হয়েছে।

খুলনা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মো. হাফিজুর রহমান বলেন, ‘বীজতলা থেকে শুরু করে ধানখেতে বোরো আবাদ ভাল হয়েছে। এখনো পর্যন্ত বড় ধরণের কোনো সমস্যা দেখা দেয়নি। শীতে যদিও ছোট্টখাট্ট সমস্যা দেখা দিয়ে থাকে তা কৃষকদের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। আশা করি এ বছর বোরো আবাদ ভাল হবে। এছাড়া কৃষকেরাও পাবে অধিক পরিমাণ ধান।

সংবাদটি শেয়ার করুন : ধন্যবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ধরনের আরো সংবাদ

আমাদের রূপসী ইউটিউব চ্যানেল

সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: রবিউল ইসলাম তোতা

প্রধান কার্য্যালয় : রামনগর পূর্ব রূপসা, রূপসা, খুলনা

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া কপি রাইট বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Hwowlljksf788wf-Iu