বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০২:৫১ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম
ডুমুরিয়ায় ডিবি পুলিশের অভিযানে ২০ পিচ ইয়াবাসহ আটক-১ সুন্দরবন প্রেসক্লাবের সাথে বুড়িগোয়ালীনির নৌকার মাঝি ভবতোষ কুমারের সাথে মতবিনিময় সভা ভারতের নদীয়ায় মটর রেসিংয়ে খুলনার ছেলে সম্রাটের কৃতিত্ব ডুমুরিয়া সদরে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ অভিযান শুরু পাইকগাছায় বিরোধপূর্ণ লিজ ঘের আদালত কর্তৃক নিয়োগকৃত উকিল কমিশনের সরেজমিনে তদন্ত  ডুমুরিয়ায় জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধে প্রতিপক্ষের হামলায় এক বৃদ্ধ আহত গোয়ালন্দে শ্বশুরবাড়িতে জামাইয়ের আত্মহত্যার অভিযোগ নববধূকে নিয়ে ফেরার পথে মাইক্রোবাস থেকে লাফ দিয়ে বরের আত্মহত্যা পীরগঞ্জে নির্বাচনি সহিংসতায় মৃত্যু- ৩ রূপসার ঘাটভোগ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন সম্পন্ন, স্বতন্ত্র প্রার্থী মিজান চেয়ারম্যান নির্বাচিত

আশাশুনি গার্লস হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে দূর্নীতির অভিযোগ সভাপতির

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট টাইম বুধবার, ২০ অক্টোবর, ২০২১
  • ৫৩ জন সংবাদটি পড়েছেন
রাকিবুল হাসানঃ আশাশুনি মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের সাথে মতবিনিময় করে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে সীমাহীন দূর্নীতির অভিযোগ তুলেছেন সভাপতি এসএম হোসেনুজ্জামান হোসেন।
মঙ্গলবার প্রধান শিক্ষকের কার্যালয়ে মতবিনিময়কালে বিদ্যালয়ের সভাপতি হোসেনুজ্জামান হোসেন অভিযোগ করে বলেন, আমি স্কুল বন্ধ থাকাকালীন গত ১৪ এপ্রিল বিদ্যালয়ের আহবায়ক কমিটির সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করেছিলাম। সে সময় স্কুলের উন্নয়ন তহবিলে ছিল মাত্র ১৮০০ টাকা। স্কুলের ক্যাম্পাসটি ছিল ময়লা আর আবর্জনাযুক্ত। স্কুলের পরিবেশ দেখলে যেকোন সচেতন ব্যক্তি হতাশ হয়ে পড়তেন। চেষ্টা করেছি এবং নিজস্ব অর্থায়নে ও সার্বিক দিক দিয়ে চেষ্টা করেছি স্কুলের উন্নয়ন করার জন্য।
স্কুল ক্যাম্পাসে সুন্দর একটি ফুলের বাগানের জন্য নির্দিষ্ট জায়গা নির্বাচন করে ইতোমধ্যে ভরাট করে বাগানের কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে। পিছন দিয়ে পানি নিষ্কাশনের বন্ধ থাকা ড্রেনটি পরিষ্কার করে পয়:নিষ্কাশন ব্যবস্থা সুগম করা হয়েছে। দীর্ঘ ১৮ বছর প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা টিউশন ফি’র টাকা পায়নি, এই টাকা প্রধান শিক্ষক নিজেই বিভিন্নভাবে খরচ করতেন। সেটি সকল শিক্ষকদের মধ্যে বন্টন করার ব্যবস্থা করা হয়েছে। স্কুলের দ্বিতল ভবনের কাজ দীর্ঘদিন টেন্ডার প্রক্রিয়া বন্ধ থাকায় তাও সচল করা হয়েছে।
স্কুলের বিদ্যুৎ লাইনের সমস্যা সমাধান করা হয়েছে। তবে সময় ও অর্থাভাবে স্কুলের প্রাচীর, ছাত্রী নিবাস, প্রধান ফটক নির্মাণ এবং স্কুলের অফিস রুমের ভবন নির্মান সম্ভব হয়নি। নানা সমস্যায় প্রতিষ্ঠানটি জর্জরিত। বিগত দিনে যেসব শিক্ষক স্কুলে যোগদান করেছিলেন তাদের কাছ থেকে স্কুল উন্নয়ন ফান্ডের টাকা নেওয়া হয়েছিল। কিন্তু সে টাকা ফান্ডে জমা করা হয়নি। সেই সব টাকা কোথায়? যোগদানকৃত ৩ শিক্ষক কর্মচারীর ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে। এত সমস্যা সমাধান করা দ্বিতীয় মেয়াদে আহবায়ক হয়ে আদৌ সম্ভব নয়, ফলে তিনি আগামীতে কমিটিতে আর না থাকার জন্য সাফ জানিয়ে দিয়েছেন স্কুলের শিক্ষক কর্মচারীদের।
তিনি সকলকে আশাশুনি বালিকা বিদ্যালয়ের পাশে থাকার জন্য এবং বিদ্যালয়টি উন্নয়নের জন্য সমাজের বিত্তবানদের এগিয়ে আসার আহবান জানান। মতবিনিময়কালে উপস্থিত ছিলেন সিনিয়র সহকারি শিক্ষক আ. ন. ম আলমগীর কবির, সুনীল কুমার মন্ডল, রবি শংকর রায়, নাজমা পারভীন, মোহাম্মদ সালাউদ্দিন, অভিজিৎ মল্লিক, আবুল ফজল পলাশসহ সকল সহকারি শিক্ষক ও কর্মচারীগণ।

সংবাদটি শেয়ার করুন : ধন্যবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ধরনের আরো সংবাদ

আমাদের রূপসী ইউটিউব চ্যানেল

সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: রবিউল ইসলাম তোতা

প্রধান কার্য্যালয় : রামনগর পূর্ব রূপসা, রূপসা, খুলনা

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া কপি রাইট বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Hwowlljksf788wf-Iu